844 বার দেখা হয়েছে বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

কুমিল্লায় সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত-৫, আহত-৩

  • 25
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    25
    Shares

মশিউর রহমান সেলিম, কুমিল্লাঃ কুমিল্লা-লাকসাম-নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কে শনিবার দুপুরে মনোহরগঞ্জ উপজেলার নাথেরপেটুয়া পুরাতন বাজার নামকস্থানে এক ভয়াবহ দূর্ঘটনায় ৫ জন নিহত এবং ২ শিশুসহ এক যাত্রী গুরুতর আহত হয়ে স্থানীয় একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। তাদের অবস্থা আশংকাজনক। লালমাই হাইওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহতদের
মরদেহসহ ক্ষতিগ্রস্থ বাস ও সিএনজি উদ্ধার করেছে। হিমাচল বাসের ড্রাইভার-হেলপার পলাতক রয়েছে।

স্থানীয় একাধিক সুত্র জানায়, শনিবার দুপুরের দিকে দ্রুতগামী হিমাচল পরিবহন চট্ট-মেট্রো-ব ১১-০৭৭৬ যাত্রী বোঝাই বাসটি নোয়াখালী হতে ঢাকা অভিমুখি বেপরোয়া চলাচলের কারনে নাথেরপেটুয়া পুরাতন বাজার নামকস্থানে নিয়ন্ত্রন হারিয়ে প্রথমে একটি বালুবাহী ট্রাক্টর ও বেটারীচালিত মিশুককে ধাক্কা দিয়ে পার্শবর্তী বৈদ্যুতিক পিলারে ধাক্কা মেরে পরবর্তীতে লাকসাম থেকে ছেড়ে আসা সোনাইমুড়িগামী যাত্রী বোঝাই চলন্ত সিএনজি গাড়ীকে চাপা দেয়।

এতে সিএনজির মধ্যে থাকা ৬ যাত্রীর মধ্যে মোহাম্মদ রাফি হোসেন (২৮)খিলা, ইয়াছিন (৩২) চাটখিল, শাহাদাত হোসেন (২৩) সোনাইমুড়ি পাঁচকুড়া, নামক ৩ জন ঘটনাস্থলেই নিহত হন। অপর অজ্ঞাত নিহত ২ জনের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

অপরদিকে মৃত রাফির সাথে থাকা স্বজন মরিয়ম আক্তার তানহা (৭) ও নাবিলা খান (১২) রামপুর লাকসাম এবং অপর যাত্রী আবুল হোসেন (৬৫) চাটখিল এবং হিমাচল বাসের যাত্রী মাফিয়া বেগম (৪৩) নারায়নগঞ্জ কে গুরুতর আহত অবস্থায় স্থানীয়রা হাসপাতালে ভর্তি করেছেন।

সূত্রগুলো আরও জানায়, দ্রুতগামী ও বেপরোয়া পরিবহন হিমাচল বাসের ওইসময় পর পর থাবায় এবং হতাহতদের ঘটনার সময় পথচারীসহ আশে পাশের লোকজনের আত্মচিৎকার ও দৌড়া দৌড়িতে এলাকায় ভয়াবহ অবস্থার সৃষ্টি হয় এবং এলাকা জুড়ে শোকের ছায়া নেমে আসে। পাশাপাশি স্থানীয় লোকজনসহ নাথেরপেটুয়া পুলিশ ফাঁড়ির সদস্যরা বাস যাত্রীদের উদ্ধার করে নিরাপদে নিয়ে আসে।

নিহতদের এক জায়গায় এবং আহতদের তাৎক্ষনিক স্থানীয় হাসপাতালে পাঠায়। এসময় সড়কের দু’পাশে শত শত যানবাহন আটকে পড়ে প্রায় ২ ঘন্টা যাবত ওই সড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়। খবর পেয়ে তাৎক্ষনিক লালমাই হাইওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে নাথেরপেটুয়া পুলিশ ফাঁড়ির সদস্য এবং স্থানীয়দের সহযোগিতায় এলাকার সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে ওই সড়কের যানজট মুক্ত করে পুনরায় সকল যানবাহন চলাচলের ব্যবস্থা করেন এবং হতাহতদের মরদেহসহ ক্ষতিগ্রস্থ বাস ও সিএনজি উদ্ধার করে নিয়ে যায়। এ ব্যাপারে লালমাই হাইওয়ে থানা পুলিশসহ সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের একাধিক মুঠোফোনে বার বার চেষ্টা করেও তাদের বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

  • 25
    Shares