216 বার দেখা হয়েছে বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

দাউদের করোনা মরণ: সংবাদে হৈচৈ

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নুর মোহাম্মদ রিয়াজ:দাউদ ইব্রাহিম ও তাঁর স্ত্রী মেহজবিন করোনা আক্রান্ত হয়ে পাকিস্তানের একটি হাসপাতালে ভর্তি বলে শুক্রবার বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হয়। আজ শনিবার সকালে তাঁর মৃত্যুর খবর নিয়ে জল্পনা শুরু হয় সর্বত্র। এখনও পর্যন্ত এই খবরের সত্যতা যদিও প্রমাণিত হয়নি। কিন্তু, সেই জল্পনা নিয়ে আজ স্যোসাল মিডিয়ায় হৈচৈ শুরু হয়েছে। এ নিয়ে আনন্দ বাজার প্রত্রিকায় এক প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়।

এর আগেও একাধিক বার দাউদের মৃত্যুর গুজব শোনা গিয়েছে। কিন্তু প্রতিবারই দেখা গিয়েছে, করাচিতে রীতিমতো বহাল তবিয়তে রয়েছেন তিনি। তাই এ দিন দাউদের মৃত্যু নিয়ে জল্পনা শুরু হলে আন্ডারটেকারের সঙ্গে তাঁকে তুলনা করতে শুরু করেন নেটাগরিকরা। কেউ কেউ লেখেন, ‘‘দাউদ হলেন আসলে আন্ডারটেকার, বার বার মৃত্যুকে মাত দিয়ে ফিরে আসেন তিনি।
দাউদের মৃত্যুর খবর নিয়ে শুভম ভট্ট নামের এক ব্যক্তি টুইটারে লেখেন, ‘‘আন্ডারটেকার এবং দাউদ এত বার মৃত্যুকে মাত দিয়ে ফিরে এসেছেন যে যমরাজও হাত তুলে নিয়েছেন।’’ ‘‘যমরাজ চাকরি ছেড়ে দেওয়ার কথা ভাবছেন,’’—বলেও লেখেন তিনি। মৃত্যুকে ফাঁকি দেওয়ায় দাউদ ছাপিয়ে গিয়েছেন আন্ডারটেকারকেও বলে মন্তব্য করেন সিমরন নামের এক তরুণী।
১৯৯৩ সালের মুম্বই বিস্ফোরণের মূল চক্রী দাউদকে ভারত এবং রাষ্ট্রপুঞ্জ আগেই আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসবাদী ঘোষণা করেছে। কিন্তু পুলিশ ও গোয়েন্দাদের চোখে ধুলো দিয়ে বেশ কয়েক দশক ধরে পাকিস্তানে নিরাপদ আশ্রয়ে রয়েছেন তিনি। সম্প্রতি জানা যায়, তিনি ও তাঁ স্ত্রী দু’জনেই করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। কিন্তু দাউদের ভাই আনিস ইব্রাহিম সেই জল্পনা খারিজ করেন। জানিয়ে দেন গোটা পরিবারই বহাল তবিয়তে রয়েছেন।