138 বার দেখা হয়েছে বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

মালয়েশিয়ায় অবৈধ গার্মেন্টস কারখানা, বাংলাদেশিসহ ৪৬ জন রিমান্ডে

  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1
    Share

আন্তর্জাতিক সংবাদঃ মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশিসহ ৪৬ জন অভিবাসীকে ১৪ দিনের রিমান্ডে নিয়েছে দেশটির অভিবাসন পুলিশ।

দেশটিতে অবৈধভাবে গার্মেন্টস কারখানা পরিচালনা, অবৈধ শ্রমিক খাটানো, মানি লন্ডারিংসহ কারখানায় কর্মরত বেশ কয়েকজনের পারমিট হ্যাক সিন্ডিকেটের মাধ্যমে অবৈধ অস্থায়ী ওয়ার্ক পারমিট ব্যবহার সন্দেহে বাংলাদেশী কারখানা মালিকসহ ৪৬ জন অবৈধ অভিবাসীকে গ্রেপ্তার করেছে দেশটির অভিবাসন পুলিশ।

তবে তাদের মধ্যে কতজন বাংলাদেশি ছিলেন তা জানায়নি পুলিশ।স্থানীয় সময় শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা বারনামার এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানিয়েছে।

দেশটির অভিবাসন বিভাগের মহাপরিচালক দাতুক খাইরুল জাইমি দাউদ জানান, বৃহস্পতিবার বিকেল চারটার দিকে মালয়েশিয়ার আম্পাং এলাকার একটি বাণিজ্যিক ভবনে অভিযান চালিয়ে পোশাক কারখানায় কর্মরত বাংলাদেশী, মিয়ানমার ও ইন্দোনেশিয়ার মোট ৪৬ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত সবার বয়স ১৭ থেকে ৬৭ বছরের মধ্যে। এসময় অভিযান চালিয়ে নগদ অর্থ, কারখানায় পরিচালিত বিভিন্ন পোশাকের মালামাল ও যন্ত্রপাতি উদ্ধার করা হয়।

অন্যদিকে, অবৈধ কারখানা স্থাপনে সহযোগিতার অভিযোগে স্থানীয় এক মালয়েশিয়ান নারীর বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছে স্থানীয় পুলিশ তিনি আরও বলেন, অভিযুক্ত কারখানার মালিক ওই বাংলাদেশি আমপাং এলাকায় বেশ কয়েকটি বাণিজ্যিক ভবন ভায়া নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে লাইসেন্সবিহীন কারখানা ও শো-রোম হিসেবে ব্যবহার করে আসছিলেন।

যেখানে কাপড় কাটা, সেলাই ও প্রিন্টিংয়ের কাজ করা হত।  পাশাপাশি শ্রমিকদের জন্য হোস্টেল হিসেবে ব্যবহার করে আসছিলেন। এছাড়াও কোম্পানির নাম ব্যবহার করে একাধিক ব্যাংক অ্যাকাউন্ট ও গাড়ি কিনে ব্যবহার করছিলেন ওই বাংলাদেশী।

গ্রেফতারকৃত সবাইকে মালয়েশিয়ার অভিবাসন আইন ৫১(৫) (খ) ধারায় তদন্তের সুবিধার্থে ১৪ দিনের জন্য রিমাণ্ডে নেয়া হয়েছে।

  • 1
    Share