729 বার দেখা হয়েছে বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

লাকসামে বাকপতিবন্ধী জাহিদের নিখোঁজ ঘিরে জনমনে তোলপাড়

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

লাকসাম প্রতিনিধি: কুমিল্লার লাকসাম উপজেলার গোবিন্দপুর ইউপির দোখাইয়া গ্রামের বাকপতিবন্ধী জাহিদুল ইসলাম (২০) ঘিরে এলাকার জনমনে তোলপাড় চলছে। জাহিদ নিখোঁজের ১০ দিন পারহলেও তার খোঁজ এখনও মিলেনি। তবে এ নিয়ে নানাহ বির্তকের জন্ম দিচ্ছে এলাকার জনমনে।
স্থানীয় একাধিক সূত্র জানায়, বাকপতিবন্ধী জাহিদ ওই গ্রামের মৃত আবদুস সামাদের ২য় সংসারের একমাত্র সন্তান এবং ১ম সংসারের অহিদুল ইসলাম নামে আরেকটি সন্তান রয়েছে। মৃত সামাদ মিয়ার মৃত্যুর পর ২ সংসারের ২ ছেলের মাঝে জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছিল। যা পরবর্তীতে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের গ্রাম্য আদালত পর্যন্ত গড়ায়। গত ২০ মে ২০২১ বাকপতিবন্ধী জাহিদ হঠাৎ করে নিখোঁজ এবং দীর্ঘ ১০ দিন পারহলেও তার কোন খোঁজ না পাওয়্য়া সন্দেহের তীর স্বজনদের বিরুদ্ধে রূপ নেয়া অস্বাভাবিক কিছুই নয়। তবে এ ব্যাপারে তার বড় সৎভাই অহিদুর রহমান বাদী হয়ে লাকসাম থানায় সাধারণ ডায়েরী করেছে।
অপরদিকে নিখোঁজ জাহিদের মা অজিবা খাতুন (৬০) পুত্র শোকে এখন বাকরুদ্ধ। একমাত্র সন্তানকে ফিরে পেতে স্বজনদের বাড়ী ও গ্রামে গ্রামে ঘুরে বেড়াচ্ছে। খবর পেয়ে সাংবাদিকদের একটি প্রতিনিধি দল ওই গ্রামে গেলে মৃত সামাদ মিয়ার ১ম সংসারের ছেলে অহিদুল ইসলামকে বাড়িতে পাওয়া যায়নি এবং জাহিদ নিখোঁজের দিন তার ছেলেও চট্টগ্রাম চলে গেছে। নিখোঁজ জাহিদের স্বজনরা এ ব্যাপারে বিকল্প পথে এগিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছে। নিখোঁজ জাহিদ দীর্ঘদিন ধরে পাশ^বর্তী আশিঁরপাড় বাজারেএকটি ফার্নিচার দোকানে চাকুরী করতো।
এ ব্যাপারে স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বার ইমন হোসেন জানায়, দোখাইয়া গ্রামের মৃত সামাদ মিয়ার ২য় সংসারের বাকপতিবন্ধী জাহিদ নিখোঁজের খবর শুনে তাৎক্ষনিক তাদের বাড়ি যাই এবং ১ম সংসারের সন্তান অহিদ মিয়াকে সাথে নিয়ে লাকসাম থানায় সাধারন করে দেই। স্বজনরা জাহিদকে বিভিন্ন স্থানে খুজে বেড়াচ্ছে।