128 বার দেখা হয়েছে বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

“সুর সম্রাট ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ ৪৮তম মৃত্যুবার্ষিকী গভীর শ্রদ্ধাঞ্জলি”

  • 9
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    9
    Shares

“দুঃখের তিমিরে যদি জ্বলে তব মঙ্গল-আলোক
তবে তাই হোক।।
মৃত্যু যদি কাছে আনে তোমার অমৃতময় লোক
তবে তাই হোক।।”- রবি ঠাকুর।

নবীনগর তথা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা বাংলাদেশের উজ্জ্বল নক্ষত্রের চারণভূমি বটে। ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ, ওস্তাদ আয়েত আলী খাঁ,শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত, বিপ্লবী উল্লাস কর, ব্যারিস্টার এ রসুল, নবাব স্যার সৈয়দ শামসুল হুদা, কথা সাহিত্যিক অদ্বৈত মল্ল বর্মণ, কবি আল মাহমুদ, আবদুল কাদিরের ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিল্প, শিক্ষা, সাহিত্য-সংস্কৃতিতে অগ্রসরমান অসাম্প্রদায়িক অঞ্চল হিসেবে পরিচিত ছিলো। মেধা, যোগ্যতা ও আত্মসম্মানবোধে স্বকীয় মহান মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি বিজড়িত এই ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মানুষ।

#আজ ৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০ উপমহাদেশীয় রাগসঙ্গীতের বিশ্ববরেণ্য মহাপুরুষ, সুবদ্ধ স্বরকলার মহাগগন, সুরসম্রাট ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ এর ৪৮তম মৃত্যুবার্ষিকী। সুরের জগতের এ বিস্ময়-পুরুষ ১৮৬২ সালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নবীনগর উপজেলাধীন শিবপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। দীর্ঘ একশত দশ বছরের লীলাময় সঙ্গীত জীবনের অবসান ঘটিয়ে তিনি ১৯৭২ সালের ৬ সেপ্টেম্বর ভারতের মধ্যপ্রদেশের মাইহারে ইন্তেকাল করেন । তাঁর পুত্র ওস্তাদ আলী আকবর খান ও কন্যা রওশন আরা বেগম অন্নপূর্ণা শাস্ত্রীয় সঙ্গীতে উজ্জ্বল নক্ষত্র হিসেবে প্রতিষ্ঠিত ছিলেন। ভুবনজয়ী এই সঙ্গীত আচার্যের বিখ্যাত শিষ্যরা হলেন পণ্ডিত রবি শঙ্কর, পণ্ডিত নিখিল ব্যানার্জী, পন্ডিত তিমির বরণ, শরন রানী , আশীষ খান, বসন্ত রায়, পান্নালাল ঘোষ সহ আরো অনেক দিকপাল সঙ্গীতজ্ঞ। সুরসম্রাট এর প্রয়াণ দিবসে তাঁকে জানাই নতশির শ্রদ্ধা।

স্পষ্টতঃই প্রতীয়মান, ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ নিজ জন্মভুমিতে অবহেলিত, উপেক্ষিত স্মৃতিচিহ্নগুলো!

‘সরোদ’ নামক বাদ্যযন্ত্রটির কিংবদন্তী কালাকার, বিশ্বের সঙ্গীত জগতে ‘সুরসম্রাট’ হিসেবে পরিচিত, বিশ্বখ্যাত সঙ্গীতজ্ঞ ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁর মৃত্যুর প্রায় অর্ধ শতক পরও ওস্তাদজীর জন্মভুমিতে তাঁর রেখে যাওয়া স্মৃতিচিহ্নগুলো সরকারি কিংবা বেসরকারি উদ্যোগে সংরক্ষণের কোন ব্যবস্থাই গ্রহণ করা হয়নি। নিজ জন্মভুমিতে সঙ্গীতের এই কিংবদন্তী ও তাঁর পরিবার যেন এখনও অবহেলিত, উপেক্ষিত।
নবীনগর উপজেলা সদর থেকে মাত্র সাত কি.মি. পূর্বদিকে অবস্থিত শিবপুর নামক গ্রামটিতে এখনও যাতায়াত ব্যবস্থা খুবই নাজুক। সম্প্রতি সঙ্গীতের তীর্থভুমি খ্যাত ‘শিবপুর’ গ্রামে গিয়ে বিভিন্ন লোকজনের সঙ্গে ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ ও তাঁর পরিবার সম্পর্কে কথা বলে সঙ্গীতের এই কিংবদন্তী ‘সুরসম্রাট’ তাঁর নিজের পূণ্যভুমিতে এখনও কতটা অবহেলিত ও উপেক্ষিত সেটি জানা গেল। অথচ এই অজ পাড়া গাঁয়ের বিশ্বখ্যাত সুরসম্রাট ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ, তার ছোট ভাই সুরসাধক ওস্তাদ আয়েত আলী খাঁ, বড় ভাই ‘মলয়া’ গানের সুরস্রষ্টা ফকির তাপস আফতাব উদ্দিন খাঁসহ আজকের প্রখ্যাত সুরকার শেখ সাদী খান, রাজা হোসেন খান, সরোদ শিল্পী ওস্তাদ শাহাদাৎ হোসেন খানসহ বহু সঙ্গীত সাধক ও কালাকার জন্ম গ্রহণ করেছেন।
তবে সঙ্গীত জগতের অহংকার এই ওস্তাদ পরিবারটি তাঁর জন্মভূমিতে কতটা অবহেলিত কিংবা উপেক্ষিত তার সর্বশেষ উদাহরণ হলো শিবপুরের যেই বাড়িতে বিশ্বসেরা শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের বড় বড় গুণী শিল্পীরা জন্ম নিয়ে পুরো গ্রামটিকে তথা বাংলাদেশকে বিশ্বের সঙ্গীত দরবারে ব্যাপকভাবে পরিচিতি দিয়েছেন!

জানা যায়, খাঁ বাড়ির উত্তর পূর্বকোণে দুটি অরক্ষিত কবর সুরসম্রাটের বাবা সবদর হোসেন খাঁ (সদু খাঁ) ও মাতা সুন্দরী খানমের শত বছরের পুরানো বিধ্বস্থ ওই দুটি কবরই এখন এই ঐতিহাসিক বাড়িটিতে ওস্তাদ পরিবারের সর্বশেষ স্মৃতিচিহ্ন।

#ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁর ভ্রাতুষ্পুত্র, একুশে পদকসহ বহু জাতীয় পুরস্কারে ভুষিত, দেশের অন্যতম জনপ্রিয় সুরকার শেখ সাদী খানের সঙ্গে। সুরের এ যাদুকর শেখ সাদী বলেন,‘এবার বুঝুন ভাই, এই সঙ্গীত পরিবারটি আজ সত্যিই কতটা অবহেলিত ও উপেক্ষিত। তাই আমি সঙ্গীত জগতের দুই দিকপাল ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ ও ওস্তাদ আয়েত আলী খাঁর (শেখ সাদী খানের বাবা) স্মৃতিধন্য এই ঐতিহাসিক বাড়িটি রক্ষার্থে যথাযথ কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করছি।

#ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ মার্গীয় সঙ্গীতকে বিশ্ব দরবারে তুলে ধরে বাংলাদেশকে সুউচ্চ আসনে বসিয়ে গেছেন, সেই সুরের রাজা সুরসম্রাট ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁর স্মৃতিকে ধরে রাখতে তাঁর জন্মভুমিতে (শিবপুর) এখও কিছু আমরা করতে পারিনি, এটি সত্যিই লজ্জার, বড়ই দুর্ভাগ্যের। তাই শিবপুরে সরকারের নেয়া সুরসম্রাট ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁর নামে বিগ বাজেটের ‘কালচারাল মিউজিয়াম’ তৈরীর প্রকল্পটি অবিলম্বে বাস্তবায়নের আমি জোর দাবি করছি।’
# বিষয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ (নবীনগর) থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য ও তথ্য মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির সদস্য এবাদুল করিম বুলবুল বলেন, ‘ইনশাল্লাহ এ সরকারের আমলেই ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ স্মৃতিচিহ্নগুলোকে সংরক্ষণের জন্য শিবপুরে ওস্তাদজীর নামে সরকারের নেয়া ‘ওস্তাদ আলাউদ্দিন খাঁ কালচারাল কমপ্লেক্স’ নির্মাণের প্রকল্পটি বাস্তবায়নের সর্বোচ্চ চেষ্টা করবো ইনশা আল্লাহ।।
(সংগৃহীত ও সংযোজিত)
মোঃ মিজানুর রহমান
নবীনগর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া।।

  • 9
    Shares