305 বার দেখা হয়েছে বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

সৌদি গিয়ে যাদের কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে না

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

অনাবাসিক এবং প্রথমবারের জন্য দর্শনার্থী- যারা কোভিড-১৯ টিকার উভয় ডোজ নিয়েছেন এবং দ্বিতীয় ডোজ টিকা দেওয়ার ১৪ দিন শেষ করেছেন, তাদের সৌদি আরবে পৌঁছে কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে না বলে জানিয়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস।

 

সংস্থাটি এ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। সেখানে বলেছে, কোয়ারেন্টাইনে না থাকতে যাত্রার সময় অবশ্যই স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুসারে টিকা নেওয়ার প্রমাণপত্র সঙ্গে রাখতে হবে।

এছাড়া, আবাসিক বা ইকামা ধারক, যারা সৌদি আরব থেকে তাওয়াকল্লা অ্যাপের মাধ্যমে আবেদন করে কোভিড-১৯ এর প্রথম বা দ্বিতীয় (উভয় বা যেকোনো একটি) টিকা নিয়েছেন এবং যাদের অবস্থান অ্যাপে (Immune) অবস্থায় আছে, তাদের সৌদি গিয়ে কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে না।

এদিকে, সৌদি আরবের তিনটি শহর- জেদ্দা, রিয়াদ ও দাম্মামে যেতে হলে যাত্রার ৭২ ঘণ্টা আগেই কোয়ারেন্টাইন হোটেলের প্যাকেজ নিশ্চিত করতে হবে বলে জানিয়েছে বিমান। একইসাথে সৌদিতে পৌঁছার ৭২ ঘণ্টার মধ্যে করোনার নমুনা পরীক্ষা ও সনদ নেওয়ার কথাও বলেছে।

মঙ্গলবার (২৫ মে) রাতে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের জনসংযোগ বিভাগের উপমহাব্যবস্থাপক তাহেরা খন্দকার স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এমন নির্দেশনা দেওয়া হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের জেদ্দা, রিয়াদ ও দাম্মামগামী যাত্রীদের যাত্রা শুরুর কমপক্ষে ৭২ ঘণ্টা আগে কোয়ারেন্টাইন হোটেলসহ প্যাকেজ নিশ্চিত করতে হবে। প্যাকেজটি নিশ্চিত করতে নিকটস্থ বিমান অফিস অথবা ট্রাভেল এজেন্সির সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে। যোগাযোগের জন্য বিমানের হলিডে লিংকে- (https://bimanholidays.com/quarantine) যেতে হবে। এই লিংক ছাড়া অন্য কোনো মাধ্যমে হোটেল বুকিং গ্রহণযোগ্য হবে না।

এছাড়া, টিকিট ও কোয়ারেন্টাইন প্যাকেজ নিশ্চিত হওয়ার পর যাত্রীকে সৌদি আরবে পৌঁছানোর আগে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে করোনার পিসিআর পরীক্ষা নমুনা দিয়ে নেতিবাচক সনদ নিতে হবে।