নারী অধিকার নিয়ে বলিউডের আলোচিত সিনেমা

লেখক:
প্রকাশ: ১ মাস আগে

আজ (৮ মার্চ) আন্তর্জাতিক নারী দিবস। বিশ্বজুড়ে এ দিবসটি যথাযথ গুরুত্বের সঙ্গে পালিত হচ্ছে। এ দিবসটিতে নারীর অবদান বিভিন্ন দৃষ্টিকোণ থেকে দেখা হয়।

 

শুধু সংসার, সমাজ ও রাষ্ট্র গঠনেই নয়, নারীর অবদান বিভিন্ন দেশের সিনেমাতেও তুলে ধরা হচ্ছে। এতে পিছিয়ে নেই বলিউড সিনেমা শিল্পও। নারী দিবসে জেনে নেওয়া যাক বলিউডে নারীত্ব ও মাতৃত্ব তথা নারী অধিকার নিয়ে নির্মিত কিছু সিনেমা সম্পর্কে।

 

বিজ্ঞাপন

 

আরও পড়ুন

 

‘ডন-৩’ সিনেমায় কত পারিশ্রমিক পাচ্ছেন কিয়ারা

‘গাঙ্গুবাঈ কাথিয়াওয়াড়ি’: বলিউড তারকা আলিয়া ভাট অভিনীত এ সিনেমায় তুলে ধরেছে এমন এক নারীর গল্প, যার লড়াই অনেক সাধারণ মানুষকে উৎসাহিত করতে পারে। সত্যঘটনা অবলম্বনে তৈরি এ সিনেমা তুলে ধরেছে এমন এক নারীর জীবনকে যে একেবারে শূন্য থেকে নিজের জীবন শুরু করে, সমস্ত প্রতিবন্ধকতা পেরিয়ে নিজের আধিপত্য, নিজের মতো কায়েম করেছিলেন।

 

বিজ্ঞাপন

 

‘মর্দানি ২’: রানি মুখোপাধ্যায় অভিনীত এ সিনেমায় ফুটিয়ে তোলা হয়েছে এমন এক নারী পুলিশ অফিসারের জীবনকে, যিনি কখনো অন্যায়ের সঙ্গে আপোষ করেন না। নিজের শক্তিতে, সমস্ত প্রতিকূলতা পেরিয়ে ন্যায় বিচার করার জন্য তিনি নিতে তৈরি যে কোনো চ্যালেঞ্জ। এ সিনেমাটি ব্যাপক প্রশংসিত হয়েছে।

 

আরও পড়ুন

 

‘সুখী’: শিল্পা শেঠি অভিনীত এ সিনেমা একেবারেই এক গৃহবধূর ঘরের গল্প। ৩৮ বছরের এক পাঞ্জাবি গৃহবধূর জীবন একটা হাইস্কুল রিউনিয়নের পরে কিভাবে বদলে যায়, সেই নিয়েই এ গল্প। একজন গৃহবধূকে একটা পরিবার গড়ে তোলার জন্য ঠিক কতটা আত্মত্যাগ করতে হয়, সেটাই তুলে ধরা হয়েছে এ সিনেমায়।

 

বিজ্ঞাপন

 

‘মিসেস চ্যাটার্জী ভার্সেস নরওয়ে’: রানি মুখোপাধ্যায় অভিনীত এ সিনেমা এক বাঙালি, ঘরোয়া মায়ের গল্প বলে, যার লড়াই একটা গোটা দেশের সঙ্গে। সদ্যজাত সন্তানকে কোল থেকে কেড়ে নেওয়ার যন্ত্রণা, তাকে ফিরে পাওয়ার লড়াই সবই সূক্ষ্মভাবে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে এ সিনেমায়। সবার ওপরে প্রাধান্য পেয়েছে একজন মায়ের ভালোবাসা, আবেগ ও অনুভূতির বিভিন্ন দিক।

 

এছাড়াও ভারতে নারী অধিকার নিয়ে একটি সিরিজ বেশ আলোচিত হয়েছে। এর নাম ‘জানে জান’। কারিনা কাপুর খান অভিনীত এ সিরিজের গল্প যেন অন্য সুরে বাঁধা। ‘সাসপেক্ট এক্স’ গল্পের অবলম্বনে তৈরি এই সিরিজে কারিনা কাপুরের ভূমিকা ছিল একজন একা মায়ের। একটি খুনের ঘটনায় জড়িয়ে পড়া ও তার থেকে নিজেকে ও মেয়েকে বাঁচানোর ঘটনাকে কেন্দ্র করেই এগিয়ে যাবে গল্প।

ইমি/পথিক নিউজ