W3Schools.com  

বেনজীরের স্ত্রী ৪৬৮ বিঘার জমির মালিক

লেখক:
প্রকাশ: ৩ সপ্তাহ আগে

পুলিশের সাবেক মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। তবে দুদক কর্মকর্তারা বেনজীর ও তার পরিবারের সম্পদের পরিমাণ দেখে অবাক হয়েছেন। বিস্মিত হয়েছেন বেনজীর আহমেদের স্ত্রীর সম্পদ দেখে।

বেনজীর আহমেদের স্ত্রী জিসান মির্জার নামে আছে প্রায় ১৪২ একর জমি (৪৬৮ বিঘা)। বেনজীর আহমেদ নিজেকে ধরাছোঁয়ার বাইরে রাখতে স্ত্রী ও দুই মেয়ের নামে সম্পত্তির পাহাড় গড়ে তুলেছেন।

দুদক কর্মকর্তারা মনে করেন, পরবর্তী ধাপের অনুসন্ধানে বেনজীর আহমেদ ও তার পরিবারের আরও সহায়সম্পত্তি বেরিয়ে আসতে পারে। ইতোমধ্যে সন্ধান পাওয়া এসব সম্পত্তি ক্রোক করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

দুদক কর্মকর্তারা রাজধানীর অভিজাত এলাকা গুলশানে স্ত্রী ও এক মেয়ের নামে একই ভবনে চারটি ফ্ল্যাট খুঁজে পেয়েছে । চারটি ফ্ল্যাটের মধ্যে তিনটি স্ত্রী জিসান মির্জার নামে আর একটি মেয়ের নামে। ২০২৩ সালের ৫ মার্চ বেনজীর আহমেদ অবসরে যাওয়ার ছয় মাসের মধ্যে কেনা হয়। এ চারটি ফ্ল্যাটের দাম দেখানো হয়েছে মাত্র ২ কোটি ১৯ লাখ টাকা।

দুদক কর্মকর্তারা বলছে, অভিজাত এলাকা গুলশানে ‘পানির দামে’ চার ফ্ল্যাট কেনার তথ্য পেয়ে তারা হতবাক। হিসাব করে দেখা যায়, চারটি ফ্ল্যাট কেনা হয়েছে প্রতি বর্গফুট ২ হাজার ৩৮৩ টাকা দাম দেখিয়ে।

দুদক কর্মকর্তারা আরও জানিয়েছে, জমি ও ফ্ল্যাট ছাড়াও বেনজীরের ও স্ত্রী-সন্তানদের নামে ১৯টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও তিনটি শেয়ার ব্যবসা করার বেনিফিশিয়ারি ওনার্স অ্যাকাউন্ট এবং ৩০ লাখ টাকার সঞ্চয়পত্র খুঁজে পাওয়া গেছে।

এখন পর্যন্ত সন্ধান পাওয়া বেনজীর ও তার পরিবারের নামে

বেনজীর আহমেদ ও তার পরিবারের নামে এখন পর্যন্ত সন্ধান পাওয়া ২০৫ একর সম্পদের মধ্যে ১৪২ একর (৪৬৮ বিঘা) রয়েছে স্ত্রী জিসান মির্জার নামে।

সূএ: যায়যায় দিন

  • জমির মালিক
  • বেনজীরের স্ত্রী