পথিকের ৩২৮তম আসরে ৩ কবিকে সম্মাননা প্রদান।

লেখক:
প্রকাশ: ৭ মাস আগে

স্টাফ রির্পোটার,ব্রাহ্মণবাড়িয়া:   জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৮ তম শাহাদাতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে আয়োজিত কবিতা প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।  

১৩ আগস্ট রবিবার বিকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া টি এ রোডস্থ ইয়াদ কমপ্লেক্সের ৪র্থতলায় মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি পাঠাগার পথিক টিভি মিডিয়া সেন্টারে এ সভার আয়োজন করা হয়।

উক্ত সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সপ্তাহিক গতিপথ পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক সাংবাদিক জাবেদ রহিম বিজন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া লাইব্রেরিয়ান জেলা সরকারি লাইব্রেরিয়ান গণগ্রন্থাগার মোঃসাইফুল ইসলাম সভাপতিত্বে পথিক টিভির ব্যবস্থাপনা পরিচালক কবি লিটন হোসাইন জিহাদের সঞ্চালনায়

বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন ব্রাহ্মণবাড়ি পৌর কলেজের ইংরেজি প্রভাষক রাবেয়া জাহান তিন্নি।

ব্রাহ্মণবাড়ি চেতনায় স্বদেশ গণগ্রন্থাগারের প্রতিষ্ঠাতা কথাসাহিত্যিক আমির হোসেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া টেলিভিশন জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক জহির রায়হান।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা কেন্দ্রীয় সমবায় ব্যাংক (বিআরডিবির)চেয়ারম্যান মোঃআবু কাউছার। সরাইল কালিকচ্ছ রাশিদউল্লাহ গণগ্রন্থাগারের প্রতিষ্ঠাতা কবি রাশিদ উল্লাসহ তুষার।

বক্তব্য রাখেন  অধ্যাপক কবি মোঃহানিফ, কথা সাহিত্যিক বইমুজুর স্বপন মিয়া, কবি আবৃতিকারক রাকিবুল ইসলাম শুভ, কথা সাহিত্যিক সালাহ উদ্দিন, সমাজ সেবক মনিরুল ইসলাম সাংবাদিক জাকির হোসাইন জিকু প্রমূখ।

বক্তারা বলেন, বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়তে গেলে সোনার মানুষ প্রয়োজন। সোনার মানুষ হতে হলে বঙ্গবন্ধুর নীতি এবং আদর্শগুলো আমাদের বুকে ধারণ করতে হবে। বঙ্গবন্ধু সম্পর্কে আরও বেশি পড়তে হবে, তার আদর্শ সম্পর্কে জানার জন্য চর্চা করতে হবে। বহু ত্যাগের বিনিময় আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি।

কবিতা আবৃতি করেন আর জে শাখাওয়াত শাহিন, আলোচনা শেষে  বাশ্চিক শিল্পী ইতি আক্তার প্রথমও মুনতাসীর মামুনের হাতে ক্রেস্ট সম্মাননা তুলে দেওয়া হয়।